এক চক্ষু মিডিয়া!!!

লিখেছেন লিখেছেন চেতনাবিলাস ২৯ ডিসেম্বর, ২০১৯, ০২:৪৫:৫০ দুপুর

তারেক রহমান তিনবছর সারা বাংলা চষে বেড়িয়েছিলেন, বিএনপির তৃনমূল নেতাকর্মীদের সাথে মিশেছিলেন। তারপর যখন তিনি বিএনপির পদ পেলেন। তখন তাকে সমালোচনায় বিদ্ধ করতে ছাড়েনি, দেশের তথাকথিত সুশীল অার একচক্ষু মিডিয়া ..

ঠিক বিপরীত চিত্রটা দেখুন, যুবলীগের সভাপতি বানানো হলো শেখ মনির বড়পুত্রকে। সভাপতি হবার অাগে যাকে এদেশের মানুষ খুব বেশী চিনতোনা। রাজনীতির সাথেও ছিলেননা.. কখনো..! যুব লীগের সভাপতির তালিকায় তার নাম কখনো অাসেনি,কিন্তু হঠাৎ সম্মেলনের কদিন অাগে তাকেই অানা হলো পাদপ্রদীপের অালোয়! অথচ এটা নিয়ে কোনো মহল থেকেই কোনো উচ্চবাচ্য নেই!

অাবার তারই অনুজের কথাই ভাবুন। ঢাকা মহানগরের ভবিষ্যৎ রুপকারের দায়িত্বটা তার হাতেই দেয়া হচ্ছে.. ঢাকার একটি অাসনের তিনি ভোটারবিহীন নির্বাচনের এমপি। অাইন পেশায় ব্যস্ত সজ্জন বলে পরিচিত। কিন্ত মহানগরের মানুষের সাথে তার সম্পর্ক কোথায়? মাঠে ময়দানে চষে বেড়ানো,খোকা,কিম্বা হানিফের সাথে তিনি কি তুল্য! তবু তিনি হয়ত ঢাকাবাসীর অভিভাবক হবেন.. এটা নিয়েও কারো কোনো ক্ষেদ না কিম্বা উষ্মা অাছে! নেই।

অাসলে জিয়া পরিবারটার দুর্ভাগ্যই হচ্ছে এটা। দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে দেয়ার পরও জিয়াকে গালমন্দ করতে কেউ কসুর করেননা। তেমনি বেগম জিয়া নয় বছর স্বৈরাচাবিরোধী অান্দোলননে অাপোষহীন থাকার পরও,দেশে সংসদীয় গণতন্ত্র ফিরিয়ে দিলেও তিনি কোন পক্ষেরই প্রশংসা পাননা; অথচ দেশে একদলীয় শাসন কায়েম করে, পাঁচ মিনিটের মধ্যে সংবিধানকে পায়ে দলে নিজেকে অাজীবন রাষ্ট্রপতি ঘোষনা দেয়ার পরও তিনি হয়ে যান মহান গণতন্ত্রী! অার স্বৈরাচারের সাথে গলাগলি করে থেকে জনগনের ভোটের অধিকার হরণ করার পরও অারেকজন খ্যাতি পান গণতন্ত্রের মানসকন্যার!

Muztoba Khondker

বিষয়: বিবিধ

৭৭৩ বার পঠিত, ০ টি মন্তব্য


 

পাঠকের মন্তব্য:

মন্তব্য করতে লগইন করুন




Upload Image

Upload File