আলিমসমাজকে জ্ঞান-বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তিতে বলিয়ান হতে হবে

লিখেছেন লিখেছেন ডক্টর আ ফ ম খালিদ হোসেন ১৮ এপ্রিল, ২০১৩, ০৮:১০:২০ রাত

ইসলামিক রিসার্চ ডেভেলাপমেন্ট ফাউন্ডেনশন (আইআরডিএফ) এর উদ্যোগে ‘সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমনে আলিমসমাজের ভূমিকা’ শীর্ষক এক সেমিনার প্রধান আলোচকের ভাষণে ইসলামী সাহিত্য ও গবেষণা পত্রিকা মাসিক ‘আত-তাওহীদ’ এর সম্পাদক ড. আ ফ ম খালিদ হোসেন বলেন, ইসলাম ও মুসলমান সম্পর্কে দেশ-বিদেশে বহুমুখী অপপ্রচার মোকাবিলায় প্রতিভাবান আলিমসমাজকে জ্ঞান-বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তিতে বলিয়ান হতে হবে। বিজ্ঞান-প্রযুক্তি, আবিষ্কার-উদ্ভাবন, চিকিৎসা, ভূগোল, সমাজতত্ত্ব, রাজনীতি, রসায়ন, শিল্প-সাহিত্য সব বিষয়ে মেধাবী ও প্রতিভাবান আলিমদের এগিয়ে আসতে হবে। তবেই দেশে ইবনু খালদুন, ইমাম গাজ্জালী, জাবির ইবনু হাইয়ান ও ইবনে সিনার মতো জগদ্বিখ্যাত ব্যক্তিত্ব সৃষ্টি হবে। তিনি আরও বলেন, টেলিভিশন ও ইন্টারনেটকে অবহেলা করার সুযোগ নেই।

তিনি বলেন, ইলেক্ট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়া এখন ইসলামের প্রয়োজনে শক্তিশালী হাতিয়ার। এগুলোর বৈধতা নিয়ে পৃথিবীর আলিমদের মধ্যে এখন আর বিতর্ক নেই। বিশ্বের প্রাজ্ঞ ধর্মতত্ত্ববিদগণ দাওয়াতে দীনের জন্য টেলিভিশন-রেডিও প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করছেন। ভারতের মুফতিয়ে আযম মুফতি কেফায়েতুল্লাহ ও শায়খুল ইসলাম বিচারপতি তকী ওসমানীর মতো মনীষীরা টেলিভিশনের রুচিপূর্ণ অনুষ্ঠানকে বৈধ বলে মত দিয়েছেন। ধর্মের বিকাশধারায় আধুনিক তথ্য প্রযুক্তিকে কাজে লাগাতে পারলেই নেতিবাচক প্রচারণার জবাব প্রদান সহজতর হবে।

আজ সকাল ১০টায় চট্টগ্রাম বটতলীস্থ হোটেল ফেভারইন ইন্টারন্যাশনাল-এ ফিরোজশাহ আল-জামিয়ার প্রিন্সিপাল মাওলানা তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে বক্তব্য রাখেন, আজিজুল হক ইসলামাবাদী, উপাধ্যক্ষ মাওলানা আবিদুর রহমান তালুকদার, প্রিন্সিপাল মুফতি হাসান মুরাদাবাদী, মাওলানা আবদুর রহমান, মাওলানা ইমরানুল হক, মাওলানা আবুল কাসেম, মাওলানা শামসুল হক, মাওলানা আবদুল হক, মাওলানা হেলালুদ্দিন, মাওলানা আবদুর রহিম, খন্দকার মুহাম্মদ হামিদুল্লাহ, মাওলানা হাসসান, ইকবাল খলিল, মাওলানা জিয়াউল হক, মাওলানা তকিউদ্দীন মুহাম্মদ আজিজ, মুহাম্মদ খালেদ প্রমুখ।

বিষয়: বিবিধ

১৮৫২ বার পঠিত, ০ টি মন্তব্য


 

পাঠকের মন্তব্য:

মন্তব্য করতে লগইন করুন




Upload Image

Upload File